বাইকার বীমা: মোটরসাইকেল ব্যবহারকারীদের জন্য দুর্ঘটনা বীমা

Bimafy (বিমাফাই – bimafy.com) বাংলাদেশের প্রথম অনলাইন ইনস্যুরেন্স মার্কেটপ্লেস, যেখান থেকে আপনি খুব সহজেই আপনার প্রয়োজনীয় ইনস্যুরেন্স পলিসি অর্ডার করতে পারবেন এবং অনলাইনেই ইনস্যুরেন্স ক্লেইম জমা দিতে পারবেন। বিমাফাই কোনো ইনস্যুরেন্স কোম্পানি নয়, এটি একটি অনলাইন প্ল্যাটফর্ম যার মাধ্যমে আপনি বিভিন্ন ইনস্যুরেন্স কোম্পানির প্রদত্ত বীমা সেবা গুলো অনলাইনে নিতে পারবেন।

বিমাফাই (bimafy.com) ফ্লেয়ার টেকনোলজিস লিমিটেডের মালিকানাধীন একটি প্ল্যাটফর্ম। Bimafy শুধুমাত্র রেজিস্টার্ড ও স্বনামধন্য ইনস্যুরেন্স কোম্পানি সমূহের বীমা সেবা বা পলিসির প্রমোশন ও বিপননে সহায়তা করে থাকে। এক্ষেত্রে, প্রতিটি ইনস্যুরেন্স কোম্পানির অনুমোদন যাচাই করে ব্যবসায়িক কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়।

বাইকার বীমা কি?

বাইকার বীমা একটি দুর্ঘটনা বীমা (এক্সিডেন্ট ইনস্যুরেন্স) যা একজন বীমা গ্রহীতাকে বিভিন্ন দুর্ঘটনাজনিত আঘাতের জন্য কভারেজ বা বীমা সুরক্ষা প্রদান করে। এটি একটি ১ বছর মেয়াদি বীমা পলিসি যার মাধ্যমে দুর্ঘটনায় আহত হলে চিকিৎসা খরচের ক্ষতিপূরণ পাওয়া যায়।

বাইকার বীমার কভারেজ কি?

বাইকার বীমা পলিসি মোট ৫০,০০০ টাকার কভারেজ প্রদান করে যার মধ্যে ৫০,০০০ টাকা পর্যন্ত কভারেজ পাওয়া যায় দুর্ঘটনা জনিত চিকিৎসার জন্য।

দুর্ঘটনার কভারেজ বিভিন্ন ধরণের আঘাতের জন্য নির্দিষ্ট করা হয়েছে নিম্নরূপ ভাবে:

– মাথায় গুরুতর আঘাত পেলে সম্পূর্ণ ৫০,০০০ টাকা 

– পাঁজরের হাড় ভাঙ্গলে বা অভ্যন্তরীণ রক্তপাত হলে ২৫,০০০ টাকা 

– হাত, পা বা অন্য কোন হাড় ভাঙ্গলে বা গুরুতরভাবে পুড়ে গেলে ১৫,০০০ টাকা 

– সাধারণ কাটা-ছেঁড়া, বা পোড়া ক্ষত হলে ২,৫০০ টাকা

বাইকার বীমার প্রিমিয়াম বা মূল্য কত?

বাইকার বীমার প্রিমিয়াম ৩৪৯ টাকা মাত্র, ১ বছরের জন্য। কোনো মাসিক প্রিমিয়াম দেওয়ার ঝামেলা নেই। ১ বছর মেয়াদ শেষ হয়ে গেলে ৩৪৯ টাকা দিয়ে আবার পলিসি নিতে পারবেন ১ বছর মেয়াদের জন্য।

কিভাবে বাইকার বীমার ক্লেইম করব?

১. আপনি যদি কোন দুর্ঘটনায় আহত হন তাহলে যত দ্রুত সম্ভব নিকটস্থ হাসপাতালের ইমার্জেন্সি বা এমবিবিএস ডাক্তারের চেম্বারে যান।

২. প্রয়োজনীয় চিকিৎসা গ্রহণ করার পরে সকল চিকিৎসা সংক্রান্ত কাগজপত্র, যেমন: প্রেসক্রিপশন, ইমার্জেন্সি টিকেট, টেস্ট রিপোর্ট, বিল, ইত্যাদি সংগ্রহ করুন ও সংরক্ষণ করুন। সম্ভব হলে আপনার আহতাবস্থার ছবি তুলে সংরক্ষণ করুন।

৩. বিমাফাই মোবাইল এপ্লিকেশন বা ওয়েবসাইট ব্যবহার করে আপনার একাউন্ট-এ লগইন করে প্রয়োজনীয় তথ্য এবং ডকুমেন্টস আপলোড করে ক্লেইম সাবমিট করুন।

আমাদের বীমা দাবি প্রক্রিয়াকরণ বিভাগ থেকে আপনার সাথে তৎক্ষণাৎ যোগাযোগ করে আপনাকে সহযোগিতা করবে। বীমা দাবি নিস্পত্তি করার জন্য আপনার ইনস্যুরেন্স ক্লেইমটি যত দ্রুত সম্ভব ইনস্যুরেন্স কোম্পানির কাছে পাঠানো হবে।

ক্লেইম এর টাকা কিভাবে পাবেন?

ইনস্যুরেন্স ক্লেইম করার সময় আপনি কোন মাধ্যমে টাকা নিতে চান সেটা উল্লেখ করে দিতে পারবেন (যেমন ব্যাংক একাউন্ট, বিকাশ, নগদ ইত্যাদি)। আপনি যেই মাধ্যম উল্লেখ করবেন সেভাবেই টাকা পরিশোধ করা হবে। সাধারণত সকল কাগজপত্র প্রদান করার ১০ কর্মদিবসের মধ্যে ক্লেইম সেটেলমেন্ট করা হয়।

বছরে কত বার ক্লেইম করা যায়?

১ বছরের মোট কভারেজ ৫০,০০০ টাকা শেষ না হওয়া পর্যন্ত একাধিকবার দুর্ঘটনায় আহত হলে প্রতিবারই ক্লেইম করা যায়।

বাইকার বীমার ঝুঁকি বহন করে কোন ইনস্যুরেন্স কোম্পানি?

বীমা ঝুঁকি বা ইনস্যুরেন্স রিস্ক বহন করে চার্টার্ড লাইফ ইনস্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড।

লক্ষ্যণীয় বিষয়সমূহ:

১. বাইকার বীমার মোট কভারেজ ৫০,০০০ টাকা যার মধ্যে দুর্ঘটনার জন্য ৫০,০০০ টাকা পর্যন্ত কভারেজ।

২. ইনস্যুরেন্স পলিসিটি ১ বছরের জন্য এবং মূল্য ৩৪৯ টাকা মাত্র যা একবারই প্রদান করতে হয় (ডেলিভারি চার্জ প্রযোজ্য হতে পারে)।

৩. দুর্ঘটনায় আহত হয়ে শুধুমাত্র রেজিস্টার্ড চিকিৎসক বা হাসপাতালে চিকিৎসা নিলে অথবা COVID-19 এ আক্রান্ত হলে চিকিৎসা সংক্রান্ত কাগজপত্র দিয়ে বীমাদাবি করা যায়।

৪. কোনো বেআইনী বা অবৈধ কাজের মাধ্যমে দুর্ঘটনায় আহত হলে বীমা দাবি বা ইনস্যুরেন্স ক্লেইম করা যায় না। 

৫. আপনার ক্লেইমটি ইনস্যুরেন্স কোম্পনি বা তার কোনো প্রতিনিধি যাচাই করার অধিকার রাখে। এক্ষেত্রে আপনার সহযোগিতা একান্ত কাম্য।

আরো বিস্তারিত জানতে ভিসিট করুন https://bimafy.com/accident-insurance/biker-bima অথবা কল করুন ০৯৬০৬৯৯১৯৯১